Home / মিডিয়া নিউজ / প্রাণ বাঁচাতে সিনেমা ছেড়েছেন পপি

প্রাণ বাঁচাতে সিনেমা ছেড়েছেন পপি

তিনবার জাতীয় চলচ্চিত্র প্রাপ্ত অভিনেত্রী সাদিকা পারভিন পপি । সিনেমার পর্দায় নেই বহুবছর ধরেই ।

চলচ্চিত্র থেকে কেনো নিজেকে গুটিয়ে নিয়েছেন এই প্রশ্নের উত্তরে পপি বলেন, ‘আমার মতো শিল্পীকে,

যে তিন-তিনবার ন্যাশনাল অ্যাওয়ার্ড পেয়েছি, আমাকে সদস্যপদ বাতিলের জন্য চিঠি দেয়া হয়েছে।

এত বছর কাজ করার পর এটা একটা শিল্পীর জন্য কতটুকু অপমানের সেটা আমি বুঝতে পারি বা আমার মতো শিল্পী যারা ভিকটিম হয়েছে তারা। এই নোংরামির কারণে আমি আমার মানসম্মান নিয়ে থাকার জন্য বা আমার জানের ভয় ছিল- সবকিছু মিলে আমি নিজেকে গুটিয়ে নিয়েছি চলচ্চিত্র থেকে, আপনাদের কাছ থেকে।

সিনেমার পর্দায় দেখা না গেলেও আজ(বুধবার) এক ভিডিও বার্তায় আসন্ন চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে ইলিয়াস কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেলের জন্য ভোট চেয়েছেন ।

ফেসবুক, ইউটিউবে প্রকাশ হওয়া সেই ভিডিও বার্তার শুরুতে সবার সুস্থতা কামনা করে পপি বলেন, ‘আমাদের শ্রদ্ধেয় বড় ভাই ইলিয়াস কাঞ্চন, একুশে পদকসহ একাধিক পদকপ্রাপ্ত এবং নিরাপদ সড়ক চাই আন্দোলনের একক পৃষ্ঠপোষক, আমাদের জনগণের কাছে পরীক্ষিত একজন সৈনিক ইলিয়াস কাঞ্চন, যিনি একজন সফল হিরো, প্রযোজক, পরিচালক। আর সঙ্গে আছেন আমার বোন নিপুণ, যার মনটা অনেক বড়। আরও সঙ্গে আছেন আমার বন্ধু, আমার কলিগ আমার হিরো আপনাদের সবার প্রিয় নায়ক রিয়াজ। কাঞ্চন ভাই এবং নিপুণ প্যানেলে যারা যারা আছেন সকলকে জানাচ্ছি আমার তরফ থেকে অনেক অনেক শুভ কামনা-ভালোবাসা।’

শুভকামনা জানানোর পর পপি আরো বলেন ‘ভেবেছিলাম আর কখনোই ক্যামেরার সামনে আসব না, কিন্তু একজন শিল্পী হিসেবে নিজের কিছু দায়বদ্ধতার জায়গা থেকে আজকে কিছু কথা না বললেই না। দীর্ঘ ২৬ বছর ইন্ডাস্ট্রিতে অনেক সুনামের সঙ্গে কাজ করার চেষ্টা করেছি। দেশ-বিদেশ থেকে বাংলাদেশের নাম উজ্জ্বল করার জন্য অনেক কাজ করেছি। তিনবার ন্যাশনাল অ্যাওয়ার্ড পেয়েছি। আজকে অনেক কষ্ট নিয়ে কথাগুলো বলা, আজ আমি কোথায়? আমি আছি, আমি আছি আপনাদের মাঝেই, হয়তো ভাগ্যে থাকলে আবার ফিরব কাজে।’

আসন্ন শিল্পী সমিতির নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে মিশা সওদাগর-জায়েদ খান এবং ইলিয়াস কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেল। ২৮তারিখে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে নির্বাচন ।

Check Also

সংবাদ পাঠিকাকে বিয়ে করতে যাচ্ছেন তাহসান

অভিনেতা, গায়ক তাহসান খান ও অভিনেত্রী মিথিলা ভালোবেসে সুখের সংসার সাজিয়েছিলেন। সেই সংসারের ইতি টানেন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *