Home / মিডিয়া নিউজ / বিয়ের প্রস্তাব পেয়েছি হাজার বার : শাবনূর

বিয়ের প্রস্তাব পেয়েছি হাজার বার : শাবনূর

দুই দশকেরও বেশি সময় বাংলা চলচ্চিত্রে রীতিমতো দাবিয়ে বেড়িয়েছেন নায়িকা শাবনূর। একের পর

এক হিট ছবি দিয়ে দর্শক ধরে রেখেছেন। একের পর এক অসাধারণ ছবি উপহার দিয়ে এ সুদর্শনী আজও দর্শকদের হৃদয়ের মণিকোটায় স্থান করে আছেন।

শাবনূর তাঁর সময়ের অপ্রতিদ্বন্দ্বী একজন চিত্রনায়িকা। ২৫ বছর আগে ‘চাঁদনি রাতে’ ছবির মধ্য দিয়ে ঢালিউডে অভিষেক ঘটে এই নায়িকার। প্রথম ছবি ‘চাঁদনি রাতে’ দিয়ে সাফল্য না পেলেও একসময় ঠিকই বাংলাদেশি সিনেমার রানি হয়ে ওঠেন শাবনূর।

ববিতা, কবরী, শাবানা, চম্পা, দিতির পরবর্তী সময়ে দেশের সিনেমায় রাজত্ব করেছেন এই নায়িকা। ২৫ বছরের পথ চলায় বহু তরুণের হৃদয়ে স্থান করে নিয়েছেন। প্রেম-বিয়ের প্রস্তাব নিশ্চয়েই পেয়েছেন। এ বিষয়ে শাবনূর কি বলেন?

প্রথম বিয়ের প্রস্তাব কবে পেয়েছিলাম, তা অবশ্য মনে নেই। কিন্তু এই জীবনে কতবার যে প্রেম আর বিয়ের প্রস্তাব পেয়েছি, তার সঠিক হিসেব নেই। এতটুকু বলতে পারি, হাজারেরও বেশি বিয়ের প্রস্তাব পেয়েছি।

বাংলা চলচ্চিত্রে অমর জুটি সালমান-শাবনূর। এ দুজনের ছবি মানেই হিট। একটা সময় গুঞ্জন উঠে এ দুজনের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠেছে। এবং সেই প্রেমের সূত্র ধরে নাকি শাবনূর সালমানকে নিয়ন্ত্রণ করতেন। এ বিষয়ে শাবনূরের জবাব-

প্রেম নয়, সালমানের সঙ্গে আমার ভাইবোনের সম্পর্ক ছিল। সালমানের নিজের ছোট বোন ছিল না, তাই আমাকে ছোট বোনের মতোই দেখতেন। এটাও ঠিক, সালমান শাহ আর আমাকে নিয়ে অনেকে অনেক কথা বলেছেন। কিন্তু এসবের কোনোটিই সত্য নয়। ছোট বোন হিসেবে আমাকে তিনি ‘পিচ্চি’ বলে ডাকতেন।

সালমানের মা-বাবাও আমাকে আদর করতেন। সালমানের কারণে আমাকে তাঁদের মেয়ে হিসেবেই দেখতেন। সালমান খুব আন্তরিক আর কাজপাগল ছিলেন। আমাদের দুজনের বোঝাপড়াটা ছিল চমৎকার। বলতে পারেন, একে অন্যের চোখের ইশারা বুঝতে পারতাম।

Check Also

সংবাদ পাঠিকাকে বিয়ে করতে যাচ্ছেন তাহসান

অভিনেতা, গায়ক তাহসান খান ও অভিনেত্রী মিথিলা ভালোবেসে সুখের সংসার সাজিয়েছিলেন। সেই সংসারের ইতি টানেন …

Leave a Reply

Your email address will not be published.